অভিষেকে নাঈম হাসানের বিশ্ব রেকর্ড

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে চট্টগ্রাম টেস্টের দ্বিতীয় দিনে নাঈম নিয়েছেন ৫ উইকেট। রেকর্ড বইয়ে লেখা থাকবে তার অভিষেকের দিনটি, যে দিনে বয়স ছিল ১৭ বছর ৩৫৫ দিন।

অভিষেকে সবচেয়ে কম বয়সে ৫ উইকেটের আগের রেকর্ড ছিল প্যাট কামিন্সের। ২০১১ সালে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ৭৯ রানে ৬ উইকেট নিয়েছিলেন অস্ট্রেলিয়ান ফাস্ট বোলার। বয়স ছিল ১৮ বছর ১৯৩ দিন।

চার স্পিনারের একাদশে বল হাতে পেতে বেশ কিছুটা সময় অপেক্ষা করতে হয়েছিল নাঈমকে। প্রথম ২৫ ওভারে বোলিং পাননি। তবে উইকেট পেতে খুব একটা অপেক্ষা করতে হয়নি। তৃতীয় ওভারেই রোস্টন চেইসকে ফিরিয়ে স্বাদ পান প্রথম উইেকেটের।

নিজের পরের ওভারেই নেন সুনিল আমব্রিসের উইকেট। পরে এক ওভারেই ফেরান দেবেন্দ্র বিশু ও কেমার রোচকে। জেমস ওয়ারিক্যানের উইকেট নিয়ে পূর্ণ করেন ৫ উইকেট। ইনিংস শেষে ১৪ ওভারে ৬১ রানে তার উইকেট ৫টি।

বাংলাদেশের হয়ে শুধু অভিষেকে নয়, সব মিলিয়েই সবচেয়ে কম বয়সে ৫ উইকেট নেওয়ার রেকর্ড এটিই। রেকর্ডটি এতদিন ছিল এনামুল হক জুনিয়রের। ২০০৫ সালে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে চট্টগ্রামের এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে ৪৫ রানে নিয়েছিলেন ৬ উইকেট। বাঁহাতি স্পিনারের বয়স ছিল ১৮ বছর ৩২ দিন।

সব মিলিয়ে অভিষেকে ৫ উইকেট নেওয়া বাংলাদেশের অষ্টম বোলার নাঈম। আট জনের ৫ জনই অফ স্পিনার!