যশোরে গলা কেটে বেনাপোলের ব্যবসায়ীকে হত্যা

যশোর শহরে দুর্বৃত্তদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে মহিদুল ইসলাম সাফা (৩৮) নামের এক ব্যবসায়ী খুন হয়েছেন।

আজ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শহরের কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মোড়ে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত সাফা শহরের আরএন রোড এলাকায় এইচএন এন্টারপ্রাইজের মালিক। তিনি বেনাপোলের ধান্যখোলা গ্রামের নবিস উদ্দিনের ছেলে।

তিনি আমদানি-রপ্তানি ব্যবসার সঙ্গে জড়িত ছিলেন এবং যশোর শহরের খালধার রোডে ভাড়া বাসায় থাকতেন।

এইচএন এন্টারপ্রাইজের ব্যবস্থাপক মোতালেব হোসেন বলেন, সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে সাফাকে সঙ্গে নিয়ে একটি মোটরসাইকেলে তিনি ঈদগাহ মোড়ে গিয়েছিলেন কিছু তথ্য কমপিউটার-কম্পোজ করার জন্য। সাফা পেছনে বসা ছিলেন।

মোটরসাইকেল মাসুদ কমপিউটার নামের একটি প্রতিষ্ঠানের সামনে দাঁড় করানোর সঙ্গে সঙ্গে আরেকটি মোটরসাইকেলে দুই দুর্বৃত্ত সেখানে হাজির হয় এবং ধারালো অস্ত্র দিয়ে সাফার গলায় আঘাত করে দ্রুত চলে যায়।

এর পরপরই সাফাকে পড়ে যেতে দেখে তাঁকে দ্রুত ধরে যশোর জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান তিনি।

হাসপাতালের সার্জারি ওয়ার্ডের চিকিৎসক শ্যামাপদ জয় বলেন, ধারালো অস্ত্রের আঘাতে সাফার শ্বাসনালি কেটে যায়। অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে তাঁর মৃত্যু হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন তিনি।

যশোর কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) অপূর্ব হাসান বলেন, কী কারণে এ হত্যাকাণ্ড ঘটেছে তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িতদের চিহ্নিত করে তাদের আটকের চেষ্টা করা হচ্ছে।