ডিআইজি হলেন পুলিশের ৩২ কর্মকর্তা

পুলিশের অতিরিক্ত উপ-মহাপরিদর্শক (অ্যাডিশনাল ডিআইজি) পদমর্যাদার ৩২ কর্মকর্তাকে উপ-মহাপরিদর্শক (ডিআইজি), গ্রেড-৩ পদে পদোন্নতি দেওয়া হয়েছে।

বুধবার (১১ মে) স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগ থেকে এক প্রজ্ঞাপনে এ পদোন্নতি দেওয়া হয়। প্রজ্ঞাপনে রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে সই করেন উপ-সচিব ধনঞ্জয় কুমার দাস।

পদোন্নতি পাওয়া কর্মকর্তারা হলেন- র‍্যাবের পরিচালক মো. মোজাম্মেল হক, র‍্যাবের পরিচালক মাহফুজুর রহমান, পুলিশ অধিদপ্তরের মো. রেজাউল হক, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মো. মনির হোসেন, এন্টি টেররিজম ইউনিটের মো. মনিরুজ্জামান, হাইওয়ে পুলিশ ইউনিটের মো. মিজানুর রহমান, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মো. মুনিবুর রহমান, সিলেট মহানগর পুলিশের পরিতোষ ঘোষ, রাজশাহী রেঞ্জ ডিআইজির কার্যালয় জয়দেব কুমার ভদ্র, পুলিশ অধিদপ্তরের কাজী জিয়া উদ্দিন, পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) মো. গোলাম রউফ খান, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মো. আসাদুজ্জামান, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মো. মাহবুবুল ইসলাম, র‍্যাবের পরিচালক শেখ মোহাম্মদ রেজাউল হায়দার, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের বেগম শামীমা বেগম ও এন্টি টেররিজম ইউনিটের বেগম সালমা বেগম।

এছাড়া ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মিরাজ উদ্দিন আহম্মেদ, বরিশাল রেঞ্জ ডিআইজির কার্যালয় এ কে এম এহসান উল্লাহ, রংপুর রেঞ্জ ডিআইজির কার্যালয় শাহ মিজান শাফিউর রহমান, নৌ পুলিশ ইউনিটের মোল্যা নজরুল ইসলাম, পুলিশ অধিদপ্তরের এস, এম, মোস্তাক আহমেদ খান, ঢাকা রেঞ্জের জিহাদুল কবির, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মঈনুল হক, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মো. ইলিয়াছ শরীফ, ঢাকা রেঞ্জ ডিআইজি কার্যালয়ের নুরে আলম মিনা, ময়মনসিংহ রেঞ্জ ডিআইজি কার্যালয়ের মো. শাহ আবিদ হোসেন, র‍্যাবের পরিচালক মো. জামিল হাসান, ঢাকা রেঞ্জ ডিআইজি কার্যালয়ের মো. মাহবুবুর রহমান, চট্রগ্রাম রেঞ্জ ডিআইজি কার্যালয়ের মো. সাইফুল ইসলাম, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সৈয়দ নজরুল ইসলাম, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মো. আনিসুর রহমান ও ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের মোহাম্মদ হারুন অর রশীদ।

২০১৬ থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত প্রতি বছর ডিআইজি পদে পদোন্নতি হয়। এরপর গত প্রায় দেড় বছর এই পদে (ডিআইজি) কোনো পদোন্নতি হয়নি। সর্বশেষ পদোন্নতি হয় ২০২০ সালের ডিসেম্বরে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.